ব্রেকিং নিউজঃ
Home / আজকের আয়োজন / ২৮ বছর পর প্রথম ব্যালটের মাধ্যমে ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবের নির্বাচন

২৮ বছর পর প্রথম ব্যালটের মাধ্যমে ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবের নির্বাচন

নিজস্ব প্রতিবদক : প্রতিষ্ঠার দীর্ঘ ২৮ বছর পর এই প্রথমবারের মত ব্যালটের মাধ্যমে ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রতিষ্ঠার পর থেকে বহুবার ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবের কমিটি পরিবর্তন হয়েছে। রাজনৈতিক ব্যক্তি, ব্যবসায়ী, ঠিকাদার, ডাক্তার, শিল্পপতিদের সমন্বয়ে পেশাদার, অপেশাদার সাংবাদিক পরিচয়ে, এককবাবর একক রকম কমিটি উপহার দেয়া হয়েছে।

একটা পর্যায়ে এসে শুধু সাংবাদকর্মীদের দ্বারাই প্রেসক্লাবের পরিচালনা কমিটি গঠন হয়েছে। কিন্তু, সেটি কখনই গনতান্ত্রিক পর্যায়ে বা সকল সাংবাদিকদের মতামতে বা ব্যালটে অথবা গোপন ভোটে নির্বাচিত হয়নি। মতামতের অগ্রাহ্য, প্রভাবশালীদের নির্দেশ বা হুমকি ধমকিতে কমিটি গঠন হতো। আস্তে আস্তে প্রেসক্লাবের সদস্য সংখ্যা বাড়তে থাকলে একচেটিয়া বা একনায়কতন্ত্রের অবসান সক্রিয় হতে থাকে সদস্যরা।

প্রতিবাদের ফসল হিসেবে কেউ বহিষ্কার, কারো সদস্যপদ স্থগিত এবং কেউ স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করে অন্য নামে সংগঠন দাড় করায়। সাংবাদিকদের প্রতি প্রশাসন, সরকারি-বেসরকারি সংস্থা, রাজনৈতিক সংগঠন সমূহ এবং সাধারণ মানুষের আস্থা ক্রমেই কমতে থাকে। কোন কোন স্বার্থলোভী, স্বার্থান্বেষী সংগঠন বা নেতারা ইচ্ছাকৃত বিভেদ তৈরি করে রাখতো। আবার প্রসাশনের, রাজনৈতিক ও সামাজিক অনেক প্রভাবশালী ব্যক্তিই সাংবাদিকদের বিভেদ অবসান ঘটিয়ে একটি বিন্দুতে পরিনত করতে মরিয়া ছিলেন।

দীর্ঘদিনের আন্দোলন বা চাহিদা যা বলা হউক না কেন, গত ১২ জুন শুক্রবার ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবের ২৯তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে সকল সদস্যের উপস্থিতিতে গোপন ব্যালটে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ও নির্বাচনী প্রথম অধিবেশনে সকাল ১১টায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শিউলী হরি নিরাপদ দুরত্ব এবং সকল স্বাস্থ্যবিধি অনুসরন করে সংক্ষিপ্ত বক্তব্যের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করেন।

বিকালের অধিবেশনে গোপন ব্যালটের মাধ্যমে সভাপতি ও সম্পাদক পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। গঠনতন্ত্র মোতাবেক সভাপতি নুরুন্নবী নোমান নির্বাচন কমিশনার থেকে স্বচ্ছতার মাধ্যমে নির্বাচন পরিচালনা করেন। উপস্থিত সদস্য, দুই সভাপতি প্রার্থী ও চার সম্পাদক প্রার্থীর সামনে মতামতের ভিত্তিতে স্বচ্ছতার মাধ্যমে নির্বাচনটি পরিচালনা করে।

নির্বাচনে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বীতায়, দৈনিক চাঁদপুর বার্তার উপজেলা প্রতিনিধি, দৈনিক আমার দেশ পত্রিকার সাবেক জেলা ও আর টিভি’র সাবেক উপজেলা প্রতিনিধি ও চ্যানেল সিক্স এর ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধি মো. কামরুজ্জামান দুইবারের সাবেক সভাপতি দৈনিক চাঁদপুর কন্ঠ ও দৈনিক ইনকিলাবের ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধিকে ১ ভোটের ব্যবধানে হারিয়ে প্রথমবারের মত সভাপতি নির্বাচিত হন। শান্তিপূর্ণ ও সৌহার্দপূর্ন পরিবেশে উভয় প্রার্থী হলফনামার মাধ্যমে ঘোষনা দিয়ে এ ফলাফল মেনে নেন।

অন্যদিকে, চার সম্পাদক প্রার্থীর মধ্যে দৈনিক ইলশেপাড়ের ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধি আব্দুস সোবহান লিটন ১০ ভোট পেয়ে সম্পাদক নির্বাচিত হন। সম্পাদক পদে অন্য প্রার্থীরা হলেন জাকির হোসেন সাইদ, আমান উল্যা আমান ও লিটন দাস।

নির্বাচনে বিজয়ীদের স্বাগত ও অভিনন্দন জানিয়েছেন বিভিন্ন মহল। বিজয়ী প্রার্থীগণ আগামীদিনে ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবের কর্মকান্ড সংবাদ এবং সাংবাদিকতার মান উন্নয়নে সকলের সহযোগীতা কামনা করেন।

Facebook Comments

Check Also

কচুয়ায় নতুন করে ২জন শনাক্ত, মোট করোনায় আক্রান্ত ১৬

মোঃ রাছেল, কচুয়া : চাঁদপুরের কচুয়ায় নতুন করে আরো ২জন করোনা শনাক্ত হয়েছে। নতুন আক্রান্তরা …

vv