ব্রেকিং নিউজঃ
Home / আঞ্চলিক খবর / শাহরাস্তিতে সহোদরদের হামলায় অবরুদ্ধ বিষয়ে ভিন্নমত পরিবারের

শাহরাস্তিতে সহোদরদের হামলায় অবরুদ্ধ বিষয়ে ভিন্নমত পরিবারের

প্রিয় চাঁদপুর রিপোর্ট : চাঁদপুরের শাহরাস্তিতে সহোদরদের হামলায় অবরুদ্ধ পরিবার এ ঘটনায় ভিন্নমত পোষণ করেছেন অবরুদ্ধ পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা।

গত ২৭ সেপ্টেম্বর স্থানীয় ও জাতীয় ইলেকট্রিক প্রিন্ট মিডিয়ায় প্রবাসী পরিবার বহিরাগত সন্ত্রাসী কর্তৃক ১৬ ঘণ্টা অবরুদ্ধ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশিত হয়।

ঘটনার বিষয়ে ওই পরিবারের সদস্য ভাই ফারুক জানান, প্রকাশিত সংবাদটি যে তথ্য উপাত্ত সরবরাহ করা হয়েছে তার সাথে ভিন্নমত রয়েছে ওই পরিবারের। প্রকৃত সত্য হল উপজেলার সূচীপাড়া উত্তর ইউপির শোরশাক উত্তর পাড়া হামিদ আলী মিজি বাড়ির অভিযোগকারী শাহীনসহ আমরা চার ভাই। আমাদের পিতা মোঃ বেলাল আহম্মেদ মাতা সুরাইয়া বেগম এবং আমাদের বড় শাহীন ও ভাবি সোনিয়া সুলতানার সঙ্গে সম্পত্তি গত সমস্যা বিরাজমান রয়েছে।বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়ভাবে কয়েকদফা সালিশ বৈঠকের পরও তা সমাধান করা যায়নি। বর্তমানে সালিশীয় ৮৭ শতক ভূমির মধ্যে বড় ভাই শাহিন ২৪ শতকের উপর ১৬৮০ বর্গফুটে আর আমরা ৩ ভাই ২০৭২ বর্গফুট সম্পত্তির উপর এক ছাঁদের নিচে দুই ইউনিটের ঘরে বসবাস করে আসছি ।

গত ৫ সেপ্টেম্বর ভবনের কলাপসিবল গেটে হামলা হয় তাতে আমাদের ভাই গংদের জড়ানো হয়েছে। প্রকৃত অর্থে বড় ভাই শাহিন নিজের বাবা-মাকে ঘর থেকে বের করে সে তালা লাগিয়ে দিয়েছে। এতে ওই রাত্রে উনাদেরকে অন্যর বাড়িতে রাত কাটাতে হয়। আমাদের বিল্ডিঙের দুটি বিদ্যুৎ মিটার ছিল তা আমাদের বড় ভাই শাহিন বাবার নামের স্বাক্ষর করে বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন জন্য আবেদন করে।

২১ সেপ্টেম্বর বিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ মিটার সংযোগ দিতে আসে কর্মীরা। তাদের নিকট জানতে চাইলে তারা আমার পিতা বেলাল আহম্মেদের এর নাম বলেন। তখন আমরা ওই কাজে বাঁধা দিলে আমাদের ভাই শাহিন ও তার স্ত্রী সোনিয়ার সঙ্গে বাক-বিতণ্ডা সৃষ্টি হয়। পরে তারা এ বিষয়ে শাহরাস্তি থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। গত ২৪ সেপ্টেম্বর শাহরাস্তি থানার এসআই শাহাজালাল ঘটনারস্থল পরিদর্শন করেন এবং দুই পক্ষকে শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে নির্দেশ দিয়ে শাহীনকে গেট খুলে দিতে বলেন। ঐদিন গেট না খোলার কথা থানাকে অবহিত করলে পরের দিন ২৫ সেপ্টেম্বও এসআই সৈকত দাশগুপ্ত ঘটনাস্থলে গিয়ে বিল্ডিং এর দরজার তালা খোলার ব্যবস্থা করেন।

এদিকে ২৬ সেপ্টেম্বর শাহিন ও তার স্ত্রী চাঁদপুর পুলিশ সুপার মহোদয়ের সঙ্গে সাক্ষাত করলে,২৯ শে সেপ্টেম্বর উভয় পক্ষকে শাহরাস্তি থানায় সৃষ্ট ঘটনা নিয়ে বসার জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনী আহ্বান করেন। ওই হিসেবে ২৯ তারিখ রাতে একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। প্রকৃত অর্থে আমরা ও আমাদের ভাইর সঙ্গে পারিবারিক বন্ধনে আবদ্ধ থেকে সমস্যার সমাধান চাচ্ছি।

Facebook Comments

Check Also

শাহমাহমুদপুরের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী আখতারুজ্জামান পাটওয়ারীর মাজার জেয়ারত

স্টাফ রিপোর্টার : চাঁদপুর সদর উপজেলার ৪নং শাহমাহমুদপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি, সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী …

vv