ব্রেকিং নিউজঃ
Home / দেশজুড়ে / শাহরাস্তিতে পরিচয়হীন স্মৃতিভ্রষ্ট আলীর আশ্রয় মিললো ভবঘুরে

শাহরাস্তিতে পরিচয়হীন স্মৃতিভ্রষ্ট আলীর আশ্রয় মিললো ভবঘুরে

মোঃমাসুদ রানা : চাঁদপুরের শাহরাস্তিতে প্রশাসনের উদ্যোগে মানসিক ভারসাম্যহীন স্মৃতিভ্রষ্ট দারোগা আলী নামে ষাটঊর্ধ্ব একবৃদ্ধকে মিরপুরের ভবঘুরে আশ্রয় কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে।

রবিবার দুপুরে (১৪জুন) শাহরাস্তি উপজেলা প্রশাসন ও সমাজসেবা অধিদপ্তর, পুলিশ প্রশাসনের (হাজিগঞ্জ -কচুয়া) সার্কেলের তত্ত্বাবধানে ও শাহরাস্তি পুলিশ প্রশাসনের সহযোগিতায় ওই বৃদ্ধ আলীকে ঢাকা মিরপুরে ভবঘুরে আশ্রয় কেন্দ্র হস্তান্তর করা হয়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, গত রবিবার (৭জুন) রাতে পৌর শহরের ৪নং ওয়ার্ডের সোনাপুর মহল্লার অধিবাসীরা এই বৃদ্ধকে চোর সন্দেহে আটক করে।পরে স্থানীয়রা শাহরাস্তি থানা প্রশাসনকে সংবাদ দিলে শাহরাস্তি অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ শাহ আলমের নিদের্শে পুলিশের উপ-পরিদর্শক এসআই জায়েদ ভূঁইয়া সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে হাজির হন। ওই সময় স্থানীয়দের দৃষ্টিতে অভিযুক্ত বৃদ্ধকে পুলিশ থানা হেফাজতে নিয়ে আসেন।

পরে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে বৃদ্ধের আচরণে অসংলগ্ন কথাবার্তা শনাক্ত হওয়ায় ওই বৃদ্ধ একজন মানসিক ভারসাম্যহীন স্মৃতিভ্রষ্ট ব্যক্তি বলে প্রতিয়মান হয়।ওই সময় (ওসি)শাহ আলম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শিরিন আক্তারকে বিষয়টি অবহিত করেন।নির্বাহী কর্মকর্তার পরামর্শে বৃদ্ধকে নিয়ে তিনি ছুটে যান শাহরাস্তি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স।

ততক্ষনে বিষয়টি সঙ্গে যুক্ত হন, হাজীগঞ্জ-কচুয়া সার্কেল অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আফজাল হোসেন, শাহরাস্তি উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা আবু ইসহাক। ওই বৃদ্ধকে সার্বক্ষনিক সুস্থতা কার্যক্রমে আগলে রাখেন এসআই জায়েদ ভুঁইয়া।

এরই মধ্যে ওই ব্যক্তিকে খুঁজে পেতে শাহরাস্তি উপজেলা প্রশাসন ও থানা প্রশাসন থেকে দুটো মুঠোফোন নাম্বার ০১৭১৩-৩৭৩৭১৬/০১৭৩৪-৯৭৪৩৬৩ উন্মুক্ত করে সোশ্যাল মিডিয়ায় বারবার প্রকাশের পরও তার সন্ধানে কেউ এগিয়ে আসেনি।

অবশেষে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা আবু ইসহাক ভবঘুরে ও নিরাশ্রয় ব্যক্তি (পুনর্বাসন) আইন ২০১১এর ১০ ধারা মোতাবেক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর ওই ব্যাক্তি নিয়ে একটি রিপোর্ট প্রদান করেন। ওই নথির আলোকে নির্বাহী কর্মকর্তা আশ্রিত ওই ব্যক্তি কে ভবঘুরে ঘোষণা করে তার নিরাপদ আশ্রয়ের এই উদ্যোগ গ্রহণ করেন।

এদিকে চিকিৎসাধীন ওই বৃদ্ধ অসুস্থতা থেকে অবস্থার কিছুটা উন্নত হলে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তার অর্থায়নে একটি মাইক্রো ভাড়া করেন। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিদের্শে ওই কার্যালয়ের (সিএ) শাহবুদ্দিন ওই বৃদ্ধের জন্য কিছু ফলমূল, নতুন পোশাক, ও করোনা সংক্রমণ থেকে রক্ষা পেতে (পিপিই) সামগ্রী সরবরাহ করেন তাকে।

পরে পুলিশের সার্কেল অতিরিক্তি পুলিশ সুপার আফজাল হোসেন, ওসি মোঃ শাহ আলম ,উপ- পরিদর্শক জায়েদ ভুঁইয়ার তত্ত্বাবধানে ওই বৃদ্ধকে মিরপুর ভবঘুরে আশ্রয় কেন্দ্রে পাঠিয়ে দেওয়া হয়।

এদিকে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ প্রতিক সেন জানান, চিকিৎসাধীন ওই বৃদ্ধ আগের চেয়ে অনেকটা সুস্থ রয়েছে।

অবশেষে শাহরাস্তিতে চোর সন্দেহে আটক ওই বৃদ্ধের ৮ দিনের চিকিৎসাকালীন জীবন যাপন শেষে মিরপুরে ভবঘুরে মাথা গোঁজার ঠাঁই নিশ্চিতের মাধ্যমে অবসান হলো একজন দারোগা আলীর পথ চলা।

Facebook Comments

Check Also

সোশ্যাল এইডার ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের ২য় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন

সাইদ হোসেন অপু চৌধুরী : ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যে দিয়ে দিনব্যাপী মানবতাবাদী স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠন …

vv