ব্রেকিং নিউজঃ
Home / শীর্ষ / যুবলীগ নেতা সোহাগ ও পুলিশের সহযোগীতায় ভাই-বোন খোঁজে পেল মা’কে

যুবলীগ নেতা সোহাগ ও পুলিশের সহযোগীতায় ভাই-বোন খোঁজে পেল মা’কে

♦♦বিশেষ প্রতিবেদক♦♦ আয়েশা জামান তাসপ্রিয়া, বয়স আর কতই বা। সবে মাত্র ১০ বছরে পা দিয়েছে। ঢাকা উত্তর মুগদা এশিয়ান আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ এ ৫ম শ্রেণীতে পড়ে। তার ছোট ভাই আবদুল্লাহ আল আবি’র বয়স ৭। সেও একই স্কুলের ২য় শ্রেণীতে পড়ে।

গতকাল ১০ জুলাই সোমবার মা বিণা জামান দুষ্টুমিকে কেন্দ্র করে বকা-ঝকা করেন। বকা-ঝকার পরিমাণটা মনে হয় একটু বেশীই হয়েছিল। তাই তাসপ্রিয়া ও আবি দুই ভাই-বোন মা বিণা জামানের সাথে অভিমাণ করে ঢাকার উত্তর মুগদার বাসা থেকে পালিয়ে আসে। তাসপ্রিয়া জানান, উত্তর মুগদার বাসা থেকে হেটেই ঢাকার সায়দাবাদ কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল এসে জনৈক এক ব্যক্তিকে চাচা সম্বোধন করে বলেন তাদের চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে যাওয়ার বাসে তুলে দেয়ার জন্য। জনৈক ওই চাচা তাদের দুই ভাই-বোনকে চাঁদপুরের পদ্মা বাসে তুলে দেয়।

সোমবার রাত সাড়ে ১১টায় পদ্মা বাসে করে ঢাকা থেকে হাজীগঞ্জে আসলে, বাস সুপারভাইজার তাদেরকে হাজীগঞ্জ বাজারে নামিয়ে দেয়। এতো রাত তারা কোথায় যাবে, কার কাছে যাবে বলতে পারছেনা। এসময় দুই ভাই-বোন ভয় পেয়ে কাঁদতে দেখে হাজীগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের সদস্য সোহাগ হোসাইন তাদের কাছে গিয়ে পরিচয় জানতে চায়।

তাসপ্রিয়া যুবলীগ নেতা সোহাগকে জানায় তাদের নানা বাড়ী হাজীগঞ্জ মিজি বাড়ি। সেখানে তাদের পৌঁছে দেয়ার জন্য বলে। সোহাগ হাজীগঞ্জের কয়েকটি মিজি বাড়ি থাকায় প্রায় সবকটি বাড়িতে খোঁজ নিয়ে নির্দিষ্ট কোন ঠিকানার সন্ধান না পেয়ে পাশে থাকা হাজীগঞ্জ থানার টহলরত এসআই (উপ-পরিদর্শক) জসিম উদ্দিনকে ঘটনাটি অবহিত করে।

পরে দুই ভাই-বোন আয়েশা জামান তাসপ্রিয়া ও আবদুল্লাহ আল আবিকে যুবলীগ নেতা সোহাগ হোসেন খাবার কিনে দেয়। এবং কোন রকম ভয় ও চিন্তা না করতে অভয় দেয়।

হাজীগঞ্জ থানার এসআই জসিম উদ্দিন ঘটনাস্থলে এসে দুই ভাই-বোনকে থানায় নিয়ে তাদের সাথে কথা বলে বাড়ীর ঠিকানা ও মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করেন। তাসপ্রিয়া জানায় তাদের বাবা আসাদুজ্জামান নুর প্রবাসে থাকেন, মুগদার বাসায় শুধু মা থাকেন। ততক্ষণে তাদের মা সন্তানদের কোন খোঁজ না পেয়ে বিভিন্ন আত্মীয় স্বজনদের বাসায় খোঁজা-খোঁজি করে থানায় জিডি’র প্রস্তুতি নিচ্ছিলো। ঠিক তখনই হাজীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোং জাবেদুল ইসলাম মুঠোফোনে তাসপ্রিয়া ও আবি’র মায়ের সাথে যোগাযোগ করে তাদের সন্তান চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ থানায় নিরাপদে আছে জানান। উন্মাদ মা তাৎক্ষণিক সন্তানদের ফিরে পেতে ঢাকা থেকে হাজীগঞ্জের উদ্দেশ্য রওয়ানা হয়েছে বলে “প্রিয় চাঁদপুর” কে নিশ্চিত করেছেন অফিসার ইনচার্জ। 

Facebook Comments

Check Also

চাঁদপুর গাছ ও দেয়াল পরে দুই শিশু আহত

স্টাফ রিপোর্টার : চাঁদপুর শহরের রহমতপুর আবাসিক এলাকায় আমগাছ ও দেয়ালের চাপায় ২ শিশু গুরুত্বর …

vv