ব্রেকিং নিউজঃ
Home / শিক্ষা / মতলব কাচিয়ারা স্কুল এন্ড কলেজের সাবেক সভাপতির বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ

মতলব কাচিয়ারা স্কুল এন্ড কলেজের সাবেক সভাপতির বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক : চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণ উপজেলাধীন কাচিয়ারা স্কুল এন্ড কলেজ গভর্নিং বডির সাবেক সভাপতি মো. শাহ জাহান সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহার করে নানান দুর্নীতির অভিযোগ করেছেন কলেজের অধ্যক্ষ মো. আব্দুল করিম। ৪ জানুয়ারী সোমবার সকালে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর অভিযোগ করেন অধ্যক্ষ মো. আব্দুল করিম।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, মো. শাহজাহান সাবেক গভর্নিং বডির সভাপতি কাচিয়ারা স্কুল এন্ড কলেজ। তিনি দীর্ঘ ১০ বছর যাবৎ থেকে কাচিয়ারা স্কুল এণ্ড কলেজ গভর্নিং বডির সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন।

গত ২৯ অক্টোবর ২০২০ ইং তারিখে কুমিল্লা বোর্ডের কলেজ পরিদর্শক প্রফেসার মো. জহিরুল ইসলাম পাটোয়ারী স্বাক্ষরিত পত্রে কাচিয়ারা স্কুল এন্ড কলেজে এডহক কমিটির গঠনের অনুমতি পত্র প্রদান করেন। যা গত ৪ নভেম্বর ২০২০ ইং তারিখে এডহক কমিটির অনুমোদন প্রদান করা হয়। এডহক কমিটি গঠনের পরিপ্রেক্ষিতে সাবেক গভার্নিং বডির সভাপতি মো. শাহজাহানের সাথে অধ্যক্ষ মো. আব্দুল করিমের সম্পর্কের অবনতি ঘটে। তার ফলোশ্রুতিতে সাবেক গভার্নিং বডির সভাপতি মো. শাহজাহান সরকার তার ছেলেকে দিয়ে অধ্যক্ষের সাথে খারাপ ব্যবহার ও মেরে ফেলার হুমকি প্রদর্শন করে। গত ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবস উদযাপনকালে সাবেক সভাপতির চাচাতো মো. সালাউদ্দিনের নেতৃত্বে কয়েকজন বখাটে অধ্যক্ষের অফিস কক্ষে প্রবেশ করে অশ্লীল ভাষা ব্যবহার ও ভয়ভীতি প্রদর্শন করে।

অভিযোগে আরো উল্লেখ থাকে যে, সাবেক সভাপতি শাহজাহান দীর্ঘ ১০ বছর সভাপতির দায়িত্ব পালন করলেও শিক্ষাক্ষেত্রে কোন ভূমিকা রাখতে পারেননি। কিন্তু দুর্নীতি করে রাতারাতি কোটি টাকার মালিক হয়েছেন শাহ জাহান। গভর্নি বডির সভাপতি থাকাকালে বোর্ডেও নিয়মানুযায়ী ৮জন দাতা সদস্যদের কাছ থেকে (প্রতিজন) দুই লাখ টাকা অর্থাৎ ১৬ লাখ টাকা এবং অস্থায়ী দাতা ৩ জন হতে (প্রতিজন) ১ লাখ টাকা অর্থ্যাৎ ৩লাখ টাকা, ৬ একর ২১.৫০ শতাংশ জমির উপর প্রতিষ্ঠানের বড় একটি পুকুর লিজ দিয়ে বাৎসরিক ৩৬ লাখ টাকা নেন কিন্তু কর্তৃপক্ষের নিকট ৯ লাখ টাকা বলে বেড়ান তাও আবার প্রতিষ্ঠানের একাউন্টে জমা না দিয়ে তিনি হ্যান্ড ক্যাশে ব্যয় করেছেন। অন্যান্য অনুদানের টাকা কখনো প্রতিষ্ঠানের একাউন্টে জমা না দিয়ে হ্যান্ড ক্যাশে ব্যয় করেছেন শাহজাহান সরকার। উপরোক্ত দুর্নীতির বিষয় চাঁদপুর জেলা শিক্ষা অফিসারের তদন্ত প্রতিবেদনে উল্লেখ রয়েছে।

সাবেক সভাপতি মো. শাহজাহান সরকার নবগঠিত এডহক কমিটি ভেঙ্গে দেওয়ার অনেক পায়তারা করে ব্যর্থ হয়ে এখন এলাকার বিভিন্ন মসজিদে গিয়ে মানুষকে ৫ জানুয়ারী’২১ তারিখে কাচিয়ারা স্কুুল এন্ড কলেজে গণমিটিং আহবান করে। শুধু তাই নয়, অধ্যক্ষ মো. আব্দুল করিমকে অনাস্থা দেওয়ার জন্য সকল শিক্ষক ও প্রভাষকদের সাথে দফায় দফায় মিটিং করছেন শাহজাহান সরকার। যা প্রতিষ্ঠানের জন্য মারাত্নক হুমকিস্বরূপ।

অভিযোগ প্রসঙ্গে কাচিয়ারা স্কুল এন্ড কলেজের গভর্নিং বডির সাবেক সভাপতি মো. শাহজাহান সরকার বলেন, আমার উপর দায়েরকৃত অভিযোগ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন। আমার কাছে যাবতীয় কাগজ পত্রাদী রয়েছে। তদন্তে সকল সত্য উদঘাটন হবে।

কাচিয়ারা স্কুল এন্ড কলেজের (এডহক) কমিটির সভাপতি মো. কামাল উদ্দিন সরদার বলেন, উপরোক্ত অভিযোগগুলো সত্য। ইতিমধ্যে এডহক কমিটির সদস্য মো. মুজিবুর রহমান বাদী হয়ে চেয়ারম্যান, দুর্নীতি দমন কমিশন বরাবর মো. শাহজাহান সরকারকে প্রধান আসামী করে ৩জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

মতলব দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাহমিদা হক বলেন, অভিযোগ পত্রটি এখনও আমি দেখিনি।

Facebook Comments

Check Also

চাঁদপুর জেলা প্রশাসকের মহতি উদ্যােগ সর্বমহলে প্রশংসিত

সজীব খান : চাঁদপুর জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশের মহতি উদ্যােগে সর্বমহলে তিনি প্রশংসিত হচ্ছেন। …

Shares
vv