ব্রেকিং নিউজঃ
Home / প্রিয় চাঁদপুর / প্রিয় মতলব উত্তর / মতলব উত্তরে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে টিপনকে হয়রানির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সভা
মতলব উত্তরে ফরাজীকান্দি ইউনিয়নে মাদক ব্যবসায়ীর বিপক্ষে প্রতিবাদ করায় ছাত্রলীগ নেতা টিপনের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে হয়রানির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

মতলব উত্তরে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে টিপনকে হয়রানির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সভা

মতলব উত্তর ব্যুরো : মতলব উত্তরে ফরাজীকান্দি ইউনিয়নে মাদক ব্যবসায়ীর বিপক্ষে প্রতিবাদ করায় ছাত্রলীগ নেতা টিপনের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে হয়রানির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

শুক্রবার (১৯ মার্চ) বিকেলে শাখারীপাড়া গ্রামে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। জানাযায়, ছাত্রলীগ নেতা টিপনের বিরুদ্ধে নুসরাত জাহান ফাতেমা (২২) নামের এক নারী এ অভিযোগ দায়ের করেন। সে শাখারীপাড়া গ্রামের মৃত সফিক চুকানীর মেয়ে। টিপন দেওয়ান শাখারীপাড়া গ্রামে মৃত আবুল হাসিম এর ছেলে।

প্রতিবাদ সভায় বক্তারা বলেন, টিপন ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত থেকে এলাকার সকল সামাজিক কর্মকান্ডে স্বত:স্ফূর্তভাবে অংশগ্রহণ করছে। এলাকার অন্যায় অপরাধের বিরুদ্ধে তার অবস্থান স্পষ্ট। এলাকায় কিংবা আশপাশের এলাকার মাদক ব্যবসায়ীদের আতংক।

তারাই প্রতিবেশী ছেলে মো. সেলিম একজন বখাটে মাদক সেবনকারী ও ব্যবাসায়ী প্রায়ই রাত্রীকালে বিভিন্ন এলাকার অচেনা ছেলেদের আনাগোনা দেখা যায় তার বাড়ীর পাশে। এই নিয়ে টিপনের সাথে সেলিমের বাকবিতন্ড হয়। একপর্যায়ে বহিরাগত লোকজন যাতে এলাকায় প্রবেশ করতে না পারে সে জন্য পথে বেড়িকেট দেয় ছাত্রলীগ নেতা টিপন। বেড়িকেট নিয়েই ছাত্রলীগ নেতা টিপনের সাথে সেলিমের হুমকিধমকী হয়। কিন্ত তা সহজভাবে মেনে নিতে পাররেনি সেলিম। বিধায় গত ২০ই মার্চ আপন ছোট বোনকে বাদী করে টিপনকে আসামী করে থানায় একটি শ্লীলতাহানীর অভিযোগ দায়ের করে। তা আদৌ সত্য নয়। আমরা এলাকাবাসী ব্যাতিত ও মর্মাহত।

বক্তারা আরো বলেন, টিপনে বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগকারী নুসরাত জাহান ফাতেমা। গত কয়েক বছর পূর্বে স্কুলে পড়া লেখা অধ্যায়নরত অবস্থায় বাল্যবিবাহ হয়। পার্শ্ববতী চরমাছুয়া গ্রামে, কিন্তু ৫-৬ মাস সংসার করার পর কাবিনের টাকা নিয়ে সংসার ত্যাগ করে। কিছুদিন পর ওই মেয়ে নতুুন বাজারের ব্যবসায়ী সরদারকান্দির গ্রামের মো. তারেকের সাথে মুঠোফোনে সম্পর্ক করে। এক পর্যায়ে তাকে শাখারীপাড়াস্থ ঘরে নিয়ে অনৈতিক কাজের সময় এলাকার ছেলের হাতেনাতে তাকে ধরে ফেলে পরে আর্থিক জরিমানা দিয়ে ব্যবসায়ী তারেক রক্ষা পায়। এই মেয়ের বিরুদ্ধে এলাকায় অনেক অভিযোগ রয়েছে। এই মিথ্যা ও বানোয়াট অভিযোগের ভিত্তিতে ছাত্রলীগ নেতা টিপনকে হয়রানি বন্ধ করতে প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করছেন এলাকাবাসী।

অভিযোগের বিষয়ে ইউনিয়ন ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক টিপন জানান, ‘অসহায়দের পাশে দাড়ানোটাই আমাদের অপরাধ হয়ে দাঁড়িয়েছে হয়তো। তাই আজ আমাদের মামলার শিকার হতে হলো।

এ সময় বীর মুক্তিযোদ্ধা হান্নান বেপারী, ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি জহিদ হোসেন, মনির হোসেন, মুক্তার হোসেন, মাফিয়া বেগম, লিপি বেগম’সহ এলাকার নারী পুরুষরা প্রতিবাদ সভায় অংশগ্রহণ করে।

Facebook Comments

Check Also

কচুয়া সড়কে বোনের নাতির ঈদের কাপড় দিয়ে লাশ হয়ে ফিরলেন দাদি

মোঃ রাছেল, কচুয়া : বোনের নাতির জন্যে ঈদ উপহার দিয়ে বাড়ি অন্য বোনের বাড়িতে যেতে রওনা …

Shares
vv