ব্রেকিং নিউজঃ
Home / প্রিয় চাঁদপুর / প্রিয় মতলব উত্তর / মতলব উত্তরে নিহত টগী রানীর পরিবারের পাশে নেই হিন্দু-বৌদ্ধ-খৃষ্টান ঐক্য পরিষদ নেতৃবৃন্দ
মতলব উত্তরে নিহত টগী রানীর অসহায় দুই শিশু সন্তান।

মতলব উত্তরে নিহত টগী রানীর পরিবারের পাশে নেই হিন্দু-বৌদ্ধ-খৃষ্টান ঐক্য পরিষদ নেতৃবৃন্দ

মতলব উত্তর ব্যুরো : সম্প্রতি মতলব উত্তর উপজেলার কলাকান্দা গ্রামের হিন্দুপাড়ার ক্ষিতিশ চন্দ্র সরকারের স্ত্রী টগী রানী সরকারকে ছেঙ্গারচরস্থ মারিয়া জেনারেল হাসপাতাল ও ডায়াগণষ্টিক সেন্টারে অবৈধভাবে গর্ভপাত করানোর সময় নিহত হন।

মৃত্যুর পর লাশ গুম করার চেষ্টায় উপজেলার বড় ষাটনল এলাকায় সেচ ক্যানেলে ফেলে দেয়। এরপর তোলপাড় সৃষ্টি হয়।
এ ঘটনায় ক্লিনিক পরিচালক আফরোজা মাসুদ ঝুনুসহ ৫ জনকে আসামী করে হত্যা মামলা দায়ের করে নিহতের স্বামী। উপজেলার সর্বসাধারন এ ঘটনায় প্রতিবাদ ও নিন্দা করলেও নিহতের পরিবারের পাশে নেই হিন্দু সম্প্রদায়ের সংগঠন ‘হিন্দু-বৌদ্ধ-খৃষ্টান ঐক্য পরিষদ’।

এ সংগঠনের নেতৃস্থানীয় কাউকে এ হত্যা মামলার কোন কার্যক্রমে বাদীর পাশে দেখা যায়নি। ফলে টগীর পরিবার পরিজন ও এলাকাবাসী ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

নিহত টগী রানীর স্বামী ক্ষিতিশ চন্দ্র ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আমার স্ত্রীকে হত্যার সাথে যারা জড়িত তাদের ফাঁসি চাই। এ ব্যাপারে এলাকার সর্বমহল আমাদের সহযোগীতা করছে। কিন্তু আমাদের ধর্মীয় সংগঠন হিন্দু-বৌদ্ধ-খৃষ্টান ঐক্য পরিষদ এর নেতবৃন্দ আমাদের কোন সহযোগীতা করেনি। সহযোগীতা তো দূরের কথা আমাদের খোঁজ-খবর পর্যন্ত নেয় নি। তারা খোঁজ না নেওয়াতে আমরা হতাশ হয়ে পড়েছি। বুজতে পারছি না তারা আদো আমাদের পাশে থাকবেন কিনা।

এ ব্যাপারে হিন্দু-বৌদ্ধ-খৃষ্টান ঐক্য পরিষদ এর ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রাধেশ্যাম সাহা বলেন, আমরা থানার ওসির সাথে বিষয়টি নিয়ে কথা বলেছি। এছাড়াও মোবাইলে টগী রানীর পরিবারের খবর নিচ্ছি। যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক বাবু শ্যামল কুমার বাঢ়ৈ বলেন, আমাদের হিন্দু-বৌদ্ধ-খৃষ্টান ঐক্য পরিষদ সংগঠনটি মতলব উত্তরে তেমন এ্যাকটিভ না। তারপরও আমি আসা-যাওয়ায় টগী রানীর পরিবারের খোঁজ খবর নেই। সভাপতি থাকেন আমেরিকা। বর্তমানে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি দিয়ে চলছে। আর সাধারন সম্পাদক শ্যামল চন্দ্র দাস মতলব দক্ষিণে থাকেন, তিনিও মুঠোফোনে খোঁজ খবর নিচ্ছেন।

স্থানীয় ছেঙ্গারচর পৌরসভার কাউন্সিলর জহিরুল হক ঢালী বলেন, আমরা আমাদের পক্ষ থেকে যতটুকু সম্ভব নিহতের পরিবারকে সহযোগীতা করছি। আমি ব্যক্তিগতভাবে এ হত্যা মামলার ন্যায় বিচার চাই। যারা এ ঘটনার সাথে জড়িত সকলে তাদের আইনের আওতায় এনে বিচারের মুখোমুখি করার দাবী জানাই।

Facebook Comments

Check Also

হাজীগঞ্জে ইউপি চেয়ারম্যানের মাছের প্রজেক্টে সরকারের ৮টি সোলার স্ট্রিট লাইট!

স্টাফ রিপোর্টার : হাজীগঞ্জের ৮নং হাটিলা পূর্ব ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এর মাছের প্রজেক্টে সরকারের ৮টি সোলার স্ট্রিট …

vv