ব্রেকিং নিউজঃ
Home / এক নজরে / বলছি তারার আকাশে এক উজ্জ্বল নক্ষত্রের কথা

বলছি তারার আকাশে এক উজ্জ্বল নক্ষত্রের কথা

টাঙ্গাইল জেলার মির্জাপুর উপজেলার কাটরা গ্রামে বিখ্যাত দেওয়ান বংশে গর্বিত পিতা দেওয়ান আব্দুল গনি এবং মাতা সুফিয়া কমলের ঘর আলোকিত করে জন্ম নেয় এক উজ্জ্বল নক্ষত্র। তিনি আর কেউ নন বাংলাদেশের সর্ব মহলের সবার ভালোবাসার প্রিয় মানুষ, বাংলাদেশ পুলিশ এসোসিয়েশন সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট ডি এ তায়েব।

মানুষ এই নক্ষত্রের পরিচয় তিনভাবে উপলব্ধি করে।

১। বাংলাদেশ পুলিশের গর্ব ও চৌকস সিনিয়র প্রথম শ্রেণীর পুলিশ কর্মকর্তা।

২। মিডিয়া জগতের সবচেয়ে ভালো মানুষ, বাংলা চলচ্চিত্রের দুঃসময়ের দাপটে হিরো এবং মিডিয়া জগতের বাদশা।

৩। মানবতার যুবরাজ।

বাংলাদেশের সর্ব মহলে গ্রহণযোগ্য এক ব্যক্তির নাম ডি এ তায়েব” বহুদিন ধরে সততার, নিষ্ঠা এবং দৃঢ়তার সাথে পুলিশের গৌরবময় অফিসার হিসেবে কর্মরত আছেন। তিনি বাংলাদেশের প্রতিনিধি হিসাবে জাতিসংঘে বীরত্বের সাথে চাকরি করেছেন এবং তিনি জাতিসংঘের স্বর্ণপদক লাভ করেন।

ডি এ তায়েব ৪ বার মহা পুলিশ পরিদর্শক পদক লাভ করেন। মিডিয়াতে সবচেয়ে ভালো মানুষের স্থানটা তার দখলে। মিডিয়াতে এমন শিল্পী খুঁজে পাওয়া যাবে না যে তার বিপদে সবার প্রথম ডি এ তায়েব সেখানে উপস্থিত হয়নি। বাংলা চলচ্চিত্রের সোনাবন্ধু খ্যাত এই সুপার স্টারের সহধর্মিনী বিশিষ্ট নাট্যকার প্রযোজক ও কাহিনীকার মাহবুবা শাহরিন, চলচ্চিত্রের এই দুঃসময়ে তিনি পর পর তিনটি দর্শক নন্দিত সিনেমা উপহার দিয়েছেন। সিনেমাপ্রেমীদের মাঝে”কোটি ভক্তের হৃদয়ে স্থান দখল করে রেখেছেন সুপারস্টার ডি এ তায়েব।

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে ডি এ তায়েব।

শুধুমাত্র চলচ্চিত্রকে ভালোবাসার কারণে একটা শিল্পী মন থাকার কারণে’ এত কঠিন ব্যস্ততম সেবামূলক চাকরি করার পরেও তিনি মিডিয়ার সাথে একদম সম্পৃক্ত মহা এই নায়ক মানবতার দিক দিয়েও মিডিয়াতে সবার উপরে”বর্তমান সময়ে করুনার এই মহামারিতে তার বহু সংগঠন সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে ডি এ তায়েব ফাউন্ডেশন, ডি এ তায়েব ফেন্ডস ক্লাব, সুপারস্টার ডি এ তায়েব অফিসিয়াল ফ্যান ক্লাব, সুপার হিরো ডি এ তায়েব ফ্যান ক্লাব।

তিনি সর্বোপরি একজন মানবিক নায়ক ও মানবিক পুলিশ অফিসার, তার মানবিক গুণাবলী গুলো সমাজে উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত, তিনি মানবতার যুবরাজ খ্যাতি অর্জন করেন। ডি এ তায়েব এমন একজন মানুষ, তিনি জানেন মানুষকে কিভাবে সম্মান করতে হয়। একজন মানুষের প্রতি কতটা শ্রদ্ধাশীল হওয়া যায়। তার একমাত্র উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত সুপারস্টার ডি এ তায়েব।”তার মতো একজন মা ভক্ত ছেলে কোটির মধ্যে একটা খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। মহান আল্লাহ সব দিক থেকেই তাকে দিয়েছেন, তার একটা ভালো মন আছে, তিনি একটা ভালো মানুষ। এ জন্য”তার মতো ভালো মানুষ পৃথিবীতে এখনো আছে বলেই পৃথিবী হয়তো বেঁচে আছে। তাকে বাংলাদেশের মানুষের জন্য চলচ্চিত্রের জন্য আপনার খুবই প্রয়োজন।

সুপার স্টার ডি এ তায়েব বাংলাদেশী মিডিয়া টেলিভিশন ও চলচ্চিত্রের এক পরিচিত জনপ্রিয় নাম। পেকেজ নাটকের শুরু থেকেই তিনি মিডিয়ার সাথে সম্পৃক্ত, তিনি নব্বই দশক থেকে আজও সমানতালে জনপ্রিয়”অনেকদিন তিনি দাপটের সাথে টেলিভিশন নাটকে রাজত্ব করে আসছেন। বাংলা চলচ্চিত্রের যখন দুঃসময় তখন তার শুধুমাত্র একটি শিল্পমনা মন থাকাতে তিনি চলচ্চিত্রে যোগদান করেন”এবং বাংলা চলচ্চিত্রের হাল ধরেন তিনি। টানা ৩ টি সিনেমা করেন এবং সমানতালে জনপ্রিয়তা লাভ করেন।”মাত্র ৩ টি সিনেমা করেও সুপার স্টার হওয়া যায় তার একমাত্র দৃষ্টান্ত সুপার স্টার ডি এ তায়েব। চলচ্চিত্রের ভাষায় একজন সুপার স্টার হলো যে নায়ক সবার ভালোবাসার প্রিয় যাকে সব শ্রেণীর দর্শক ভালোবাসে, ভার্সিটি লেভেল থেকে শুরু করে খেটে খাওয়া মানুষ পর্যন্ত’,সিনেমাহলের ডিসি থেকে রিয়ার পর্যন্ত দর্শক যাকে ভালোবাসে সেই হল প্রকৃত সুপারস্টার।

অভিনয়ের এমন কোন চরিত্র নেই যে সুপার স্টার ডি এ তায়েব সেখানে অভিনয় করেননি। তিনি সব ধরনের অভিনয় করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন এবং তাঁর অভিনয়ের মাধ্যমে তার জাত চিনিয়ে দিয়েছেন। তিনি তার ভালোবাসা দিয়ে বর্তমানে মিডিয়া জগতের বাদশায় পরিণত হয়েছেন। সব শ্রেণীর দর্শকদের ভালোবাসার নায়ক সুপার স্টার ডি এ তায়েব। তিনি বর্তমানে প্রায় মৃত চলচ্চিত্রকে বাঁচিয়ে রেখেছেন এবং বর্তমানে একাধিক সিনেমার কাজ তার হাতে রয়েছে। তিনি মিডিয়া জগতের সবচেয়ে ভালো মানুষ হিসেবে খ্যাতি অর্জন করেছেন,তার প্রাণবন্ত অভিনয় সব দর্শকদের হৃদয় জুড়ে থাকে সব সময় তিনি খুব সহজেই যেকোন চরিত্রকে মানিয়ে নিতে পারেন যা একজন সুপার স্টার এর একটি বড় গুণ। বাংলাদেশী মিডিয়ায় তিনি রেকর্ড গড়া ১২৫ প্লাস নায়িকার বিপরীতে অভিনয় করেছেন তিনি। ২৫০০ নাটকে অভিনয় করেছেন এবং চলচ্চিত্রের তিনি সুপারহিট সিনেমা “সোনাবন্ধু” অন্ধকার জগত ও আমার মা এর মত জনপ্রিয় সিনেমাগুলোতে তিনি অভিনয় করেছেন।

মিডিয়া জগতের জীবন্ত এক কিংবদন্তি নাম সুপার স্টার ডি এ তায়েব একটি সিনেমা ইন্ডাস্ট্রির জন্য একজন সুপারস্টারের যে দায়িত্ব এবং কর্তব্য সেই দায়িত্ব তিনি সঠিকভাবে পালন করছেন। এবং তিনি মিডিয়া জগত” টেলিভিশন” চলচ্চিত্র ও দর্শক মহলসহ সব জায়গাতেই সবার ভালোবাসার সম্মানের এবং সবার শ্রদ্ধার পাত্র। তিনি তার অভিনয়ের মাধ্যমে সবার হৃদয় জুড়ে রয়েছে”মিডিয়া টেলিভিশন ও বাংলা চলচ্চিত্রের সকল শিল্পী, কলাকুশলী, পরিচালক এবং প্রযোজক থেকে শুরু করে একজন প্রোডাকশন বয় পর্যন্ত তাকে মিডিয়া জগতের সবচেয়ে ভালো মানুষ হিসেবে সম্বোধন করে।

তার একমাত্র অনুপ্রেরণা তার দর্শকরা। তিনি তার সকল দর্শককে অন্তর দিয়ে ভালোবাসেন। একজন সুপার স্টার হতে একজন নায়কের যা প্রয়োজন তার মধ্যে সকল গুণাবলী বিদ্যমান। তিনি একজন সুদর্শন নায়ক এবং তার মধ্যে মানবিক গুণাবলী ১০০% বিদ্যমান। তিনি সর্বগুণে গুণান্বিত এবং স্বয়ংসম্পূর্ণ একজন সুপারস্টার। তিনি সব শ্রেণীর সব ধরনের সব পেশার মানুষের ভালবাসার মানুষ। তিনি নাটক এবং সিনেমাতে অনেক নায়িকা এবং সহ শিল্পীকে ব্রেক দিয়েছেন, তারা আজকে দেশের নামকরা স্টার। মিডিয়াতে সবার আস্থাভাজন ডি এ তায়েব নাটক এবং সিনেমা ইন্ডাস্ট্রির জন্য একটি নিবেদিত প্রাণ।

তিনি তার অভিনয় জীবনে বিভিন্ন নাটক”সিনেমা ও টেলিফিল্মের জন্য ২ শতাধিক পুরস্কার লাভ করেন। তার অন্যতম পুরস্কার গুলো হলো হতাই নাটকের জন্য বাচ্ছাস, দর্শক রায়ে সেরা অভিনেতা, বিসিআর এ অ্যাওয়ার্ড” কবি বেগম সুফিয়া কামাল স্মৃতি পদক ২০০৮” এ ওয়ান টেলিমিডিয়া হৃদয় স্বাধীনতা অ্যাওয়ার্ড ২০১৯” শেরে বাংলা স্মৃতি সম্মাননা স্মারক ২০১৮” বঙ্গবন্ধু জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে শ্রেষ্ঠ অ্যাওয়ার্ড ২০১৯” সহ আরো অনেক পুরস্কার।”

ডি এ তায়েব বাংলাদেশ পুলিশ এসোসিয়েশন সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট,সুপার স্টার ডি এ তায়েব অফিসিয়াল ফ্যান ক্লাবের চেয়ারম্যান, বারী সিদ্দিকী স্মৃতি পরিষদের প্রধান উপদেষ্টা, টাঙ্গাইল জেলা সমিতির ৭ বারের সাবেক সফল সাধারণ সম্পাদক, টেনাসিনাস বাংলাদেশ টেলিভিশন নাট্য শিল্পী সংঘের সম্মানিত সদস্য, উইক ক্লাবের সম্মানিত সদস্য, পাকুল্লা অগ্রনী যুব সংঘের সাবেক সফল সভাপতি, ডিরেক্টর গিল্ডের সম্মানিত সদস্য, অভিনয় সংঘের সম্মানিত সদস্য, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সম্মানিত সদস্য” ও বাংলাদেশ ফিল্ম ক্লাবের সম্মানিত আজীবন সদস্য। বাংলা চলচ্চিত্রের এই সুপার স্টার নায়ক ডি এ তায়েবের সর্ব সাফল্য কামনা করছি। পরিশেষে বলব সব শ্রেণীর দর্শকদের প্রিয় নায়ক সুপারস্টার ডিএ তায়েব আপনি এগিয়ে যান চলচ্চিত্রের দর্শক আছে আপনার সাথে।

লেখক :
পিয়াস আফ্রিদি
প্রতিষ্ঠাতা, সুপার স্টার ডি এ তায়েব অফিসিয়াল ফ্যান ক্লাব

Facebook Comments

Check Also

আওয়ামী লীগই যেকোনো দুর্যোগ সংগ্রামে নেতৃত্ব দিয়েছে : রুহুল এমপি

মনিরুল ইসলাম মনির : এডভোকেট নুরুল আমিন রুহুল বলেছেন, আওয়ামী লীগ শুধু ক্ষমতায় থেকে মানুষের …

Shares
vv