ব্রেকিং নিউজঃ
Home / প্রিয় চাঁদপুর / প্রিয় মতলব উত্তর / জনসংখ্যা রোধ কল্পে সরকারি কার্যক্রমের পাশাপাশি গণসচেতনতা গড়ে তুলতে হবে

জনসংখ্যা রোধ কল্পে সরকারি কার্যক্রমের পাশাপাশি গণসচেতনতা গড়ে তুলতে হবে

মতলব উত্তরে বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস উপলক্ষে র‌্যালি ও সভায় ইউএনও শারমিন আক্তার

‘পরিবার পরিকল্পনা’ জনগণের ক্ষমতায়ন, জাতির উন্নয়ন এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান মন্ত্রনালয় ও চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়ের আয়োজনে বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস উপলক্ষে র‌্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

মঙ্গলবার বেলা ১১ টায় মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদ কমপ্লেক্স চত্তর থেকে ইউএনও শারমিন আক্তারের নেতৃত্বে র‌্যালি শেষে মায়া বীর বিক্রম মিলনায়তনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আতাম বোরহান উদ্দিন।

প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তার, তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন অতিরিক্ত জনসংখ্যা সম্পদ নয়, বরং বোঝা, অপুষ্টি অপর্যাপ্ত শিক্ষার সুযোগ, বেকারত্ব সেবার অপ্রতুল ইত্যাদি সমস্যা মূলে রয়েছে অতিরিক্ত জনসংখ্যা ।

 

তিনি বলেন, বিশ্ব জনসংখ্যা দিবসে সকলকে শপথ নিতে হবে আগামীতে জনসংখ্যা রোধ কল্পে সরকারি কার্যক্রমের পাশাপাশি গণসচেতনতা গড়ে তুলতে হবে। তিনি আরও বলেন, দেশে যেভাবে জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে সেই তুলনায় কর্মসংস্থান বাড়ছে না। জনসংখ্যা কমানোর লক্ষ্যে নিজেদেরকে সচেতন হতে হবে। স্বল্প উন্নত দেশ হলেও আমরা উন্নয়নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি। তিনি আরও বলেন, ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ বিশ্বের দরবারে মধ্য আয়ের দেশ হিসাবে উন্নতি লাভ করবে।

ইউএনও শারমিন আক্তার বলেছেন, বাল্য বিবাহের ফলেই অপ্রাপ্ত বয়সের কিশোর-কিশোরীরা অপরিকল্পিতভাবে গর্ভধারন করে। যার ফলে দিন দিন জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। তিনি আরো বলেন, বাল্য বিবাহের প্রবণতা থেকে দেশে বৃহত্তর সমাজকে বের করে আনতে হলে দরকার শিক্ষা ও সচেতনতা বৃদ্ধি। সামাজিক সচেতনতাই পারে বাল্য বিবাহ রোধ করতে। জনসংখ্যা দূষণরোধে পরিবার পরিকল্পনা গ্রহনের বিষয়ে গুরত্ব তুলে ধরেন। পরিবার পরিকল্পনা পদ্ধতি সাধারণ মানুষের মাঝে ছড়িয়ে দিতে মাঠ কর্মীদের আন্তরিকতার সাথে কাজ করার আহ্বান জানান তিনি ।

বক্তব্য রাখেন- উপজেলা স্বাস্থ্য ও প.প. কর্মকর্তা ডা. হাবিব ইসমাঈল ভূঁইয়া, ওসি আনোয়ারুল হক কামাল, ফতেপুর পশ্চিম ইউপি চেয়ারম্যান নূর মোহাম্মদ, সমাজসেবা কর্মকর্তা রুহুল আমিন, যুব উন্নয়ন কর্মকতা মো. ফারুক হোসেন, উপ-সহকারী মেডিক্যাল অফিসার ডা. আবুল হাসানাত কাজল, পরিদর্শক মারফত আলী, এফডব্লিউভি জেমিন, এফডব্লিউএ আফরোজা আক্তার জুনু।

অনুষ্ঠানে শ্রেষ্ঠ প.প. সহকারী হিসেবে আফরোজা আক্তার ঝুনু, এফডব্লিউভি হিসেবে মাহমুদা খানম, শ্রেষ্ঠ ইউনিয়ন ফতেপুর পশ্চিম, শ্রেষ্ঠ ইউনিয়ন ফরাজীকান্দি ক্রেস্ট গ্রহন করেন।

Facebook Comments

Check Also

মতলব উত্তর নবাগত উপজেলা নির্বাহী অফিসার স্নেহাশীষ দাশকে বরণ

মনিরুল ইসলাম মনির : মতলব উত্তরের নবাগত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা স্নেহাশীষ দাশ এর বরন অনুষ্ঠানের …

vv