ব্রেকিং নিউজঃ
Home / শীর্ষ / চান্দ্রায় মাছ চুরি করতে গিয়ে গণধোলাইয়ের শিকার, চোরকে বাঁচাতে অভিযোগ

চান্দ্রায় মাছ চুরি করতে গিয়ে গণধোলাইয়ের শিকার, চোরকে বাঁচাতে অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিনিধি : চাঁদপুর সদর উপজেলার ১২ নং ইউনিয়নের দক্ষিণ মদনা গ্রামের মাছ চুরি করতে গিয়ে হাতেনাতে ধরে চিহ্নিত চোর চক্রের হোতা আনোয়ার মালকে গণধোলাই দিয়েছেন স্থানীয়রা। চুরির ঘটনা ধামাচাপা দিতে চোরকে বাঁচাতে ঘটনা অন্য দিকে ধাবিত করে চোরের পক্ষ নিয়ে সালিশিরা স্থানীয় কয়েকজনের বিরুদ্ধে চাঁদপুর মডেল থানায় একটি মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগটি তদন্ত করার জন্য চাঁদপুর মডেল থানার এসআই আওলাদ হোসেনকে নির্দেশ প্রদান করেন মডেল থানার ওসি আব্দুর রশিদ। মাছ চুরির ঘটনাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় অসহায়দের বিরুদ্ধে মিথ্যে অভিযোগ দেওয়ার কারনে দক্ষিণ মদনা ৫ নং ওয়ার্ড এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। রাতে পুলিশ এসে আসামি ধরবে বলে এমন গুজব ছড়িয়ে অভিযোগে উল্লেখিত ব্যক্তিদের ভয় দেখিয়ে বাড়ি ছাড়া করে পুনরায় দোকানপাটে দুর্ধর্ষ চুরি করেছে বলে খবর পাওয়া গেছে।

স্থানীয়রা অভিযোগ করে বলেন, দক্ষিণ বালিয়া গ্রামের আলী হোসেন মালের ছেলে আনোয়ার মাল বহুদিন যাবৎ এলাকায় চাপকল চুরি,গাড়ির ব্যাটারি চুরি ও বসতবাড়িতে বেশ কয়েকবার চুরি করেছে। এর পূর্বে আনোয়ার মালকে কয়েকবার চুরির মাল সহ আটক করেছে।

কয়েকদিন পূর্বে চিহ্নিত চোর আনোয়ার মাল ও তার সহযোগীরা দক্ষিণ মদনা গ্রামের ত্রিপুরা বাড়ির পাশে সুবল দাসের পুকুরে রাতে মাছ চুরি করতে যায়। এ সময় পাশের বাড়ির সাইফুল সহ বেশ কয়েকজন চোরকে হাতেনাতে ধরে উত্তম-মধ্যম দেয়।
এ সময় স্থানীয় কয়েকজন সালিশি ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার জন্য পরে সমাধান করবে বলে আশ্বস্ত করে চোরকে সেখান থেকে ছাড়িয়ে নিয়ে আসে।

চুরির ঘটনা সমস্যার সমাধান না করে ঘটনাটি অন্য দিকে প্রবাহিত করতে স্থানীয় কয়েকজন চোরের পক্ষ নিয়ে চাঁদপুর মডেল থানায় একটি মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করেন।

এই ঘটনা মডেল থানার তদন্তকারী কর্মকর্তা আওলাদ হোসেন জানান, দক্ষিণ মধ্যম গ্রামের মাছ চুরি করতে গিয়ে আনোয়ার মাল নামে একজনকে আটক করে ধোলাই দেওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় স্থানীয়ভাবে সমাধান না হওয়ার কারণে ইউপি চেয়ারম্যান সহ আরেকজন ব্যক্তি থানায় এসে একটি অভিযোগ প্রদান করেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে ঘটনাটি তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

এ বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান খানজাহান আলী কালু পাটোয়ারী জানান, মাছ ধরতে গিয়ে আনোয়ার মাল নামে একজনকে স্থানীয়রা চুরির অপবাদে মারধর করেছে। এই ঘটনাটি ইউপি কার্যালয় উভয়পক্ষকে নিয়ে সমঝোতা করার চেষ্টা করেছি। তবে একপক্ষ আসলেও অপরপক্ষ না আসায় থানায় এই অভিযোগ হয়েছে।

এদিকে যারা চোরের পক্ষ নিয়ে স্থানীয় লোকজনের বিরুদ্ধে থানায় মিথ্যা অভিযোগ করেছেন তারাই চোরদের সেন্টার দিচ্ছে। চোরচক্ররা তাদের শেল্টার পেয়ে এলাকায় দিনে-রাতে সরকারি মালামালসহ স্থানীয় এলাকাবাসীর বাড়িতে চুরি করছে। চোর চক্রদের গ্রেফতার করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করার জোর দাবি জানান সচেতন মহল।

Facebook Comments

Check Also

চাঁদপুর ট্রাফিক বিভাগের ইফতার বিতরণ

নিজস্ব প্রতিনিধি : বিভিন্ন যানবাহন চালক ও অসহায় দুস্থ জনসাধারণের মাঝে ইফতার বিতরণ করেছেন চাঁদপুর জেলা …

Shares
vv