ব্রেকিং নিউজঃ
Home / প্রিয় চাঁদপুর / গায়ে হলুদের অনুষ্ঠান থেকে ফেরা হলো না আর সাব্বিরের
উপাদী দক্ষিণ ইউনিয়নের করবন্দ গ্রামে পড়ে থাকা কিশোরের লাশ।

গায়ে হলুদের অনুষ্ঠান থেকে ফেরা হলো না আর সাব্বিরের

মাসুদ হোসেন : মতলব দক্ষিণ উপজেলার উপাদী দক্ষিণ ইউনিয়নের করবন্দ এলাকা থেকে সাব্বির হোসেন (১৪) বন্ধুদের সাথে পার্শ্ববর্তী হিন্দু বাড়িতে গায়ে হলুদের অনুষ্ঠানে যায়। সেখান থেকে আর ফেরা হলো না তার।

সোমবার (২২ জানুয়ারি) সকালে স্থানীয়রা সাব্বির হোসেনের লাশ রাস্তার পাশে পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। মতলব দক্ষিণ থানা পুলিশ করবন্দ এলাকা থেকে বেলা ১২টার দিকে মহামায়া-রাজারগাঁও সড়কের পাশে কচুরিপানা ভর্তি পানির মধ্য থেকে লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য থানায় নিয়ে যায়।

নিহত সাব্বির হোসেন মতলব দক্ষিণ উপজেলার উপাদী দক্ষিণ ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড করবন্দ গ্রামের মিয়াজী বাড়ির মোঃ ইসমাইল মিজির ছোট ছেলে। সাব্বির হোসেন ধলাইতলী মাদ্রাসার ৬ষ্ঠ শ্রেণীর একজন মেধাবী ছাত্র ছিলো।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, রবিবার (২১ জানুয়ারি) সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে মায়ের কাছ থেকে জোড় করে আঠারো হাজার টাকা দামের একটি এন্ড্রয়েড মোবাইল নিয়ে বন্ধুদের সাথে পার্শ্ববর্তী হিন্দু বাড়িতে গায়ে হলুদের অনুষ্ঠানে যায়। তার মা রাত সাড়ে দশটা পর্যন্ত কল দিলে ফোন খোলা পেলেও এর পর থেকে যতবার কল দেওয়া ততবারই কল কেটে দেয়। সকালে ছেলের মৃত্যুর খবর পেয়ে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন হতভাগা মা।

এ বিষয়ে ইউপি সদস্য বিল্লাল হোসেনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, কে বা কাহারা এবং কিভাবে ছেলেটিকে মেরে পানির মধ্যে এভাবে পেলে রেখেছে তা আমরা বলতে পারবো না।

ময়না তদন্ত শেষে কিশোরের লাশটি পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হলে এবং বাদ মাগরিব পারিবারিক কবরস্থানে সাব্বির হোসেনের মৃত দেহ দাফন করা হয়। ছেলেটিকে কিভাবে মারা হয়েছে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানা থেকে কোন প্রতিবেদন পাওয়া যায়নি।

Facebook Comments

Check Also

চাঁদপুরে ৫ম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রী ধর্ষণে পুলিশের সহায়তায় মামলা দায়ের

স্টাফ রিপোর্টার : চাঁদপুরে পঞ্চম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় পুলিশের সহায়তায় মামলা দায়ের করা …

vv